সর্বশেষ সংবাদ
চটগ্রাম বিভাগ, প্রধান সংবাদ চট্টগ্রামে আ. লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি মাহতাব

চট্টগ্রামে আ. লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি মাহতাব


পোস্ট করেছেন: niher sarkar | প্রকাশিত হয়েছে: 12/25/2017 , 7:48 am | বিভাগ: চটগ্রাম বিভাগ,প্রধান সংবাদ


 

চট্টগ্রাম প্রতিনিধিঃ

চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতির দায়িত্ব দেয়া হয়েছে সিনিয়র সহ-সভাপতি মাহতাব উদ্দিন চৌধুরী। শনিবার রাতে গণভবনে আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্যদের বৈঠকে এ সংক্রান্ত সিদ্ধান্ত নেয়া হলেও রবিবার রাতে বিষয়টি জানাজানি হয়।

মহানগরের দীর্ঘদিনের সভাপতি মহিউদ্দিন চৌধুরী মারা গেলে ওই পদটি শুন্য হয়ে পড়ে। ভারপ্রাপ্ত সভাপতির দায়িত্ব পাওয়া মাহতাব উদ্দিন চৌধুরী বর্তমান কমিটির সিনিয়র সহ-সভাপতি ছিলেন। বঙ্গবন্ধুর ঘনিষ্ঠ সহচর প্রয়াত জহুর আহমদ চৌধুরীর বড় ছেলে সাইফুদ্দিন খালেদ চৌধুরী মুক্তিযুদ্ধে শহীদ হন। দ্বিতীয় ছেলে মাহতাব নগর আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতির দায়িত্বে রয়েছেন দীর্ঘদিন ধরে। চট্টগ্রামে মুক্তিযুদ্ধের অন্যতম সংগঠক জহুর আহমদ চৌধুরীর পরিবারের সঙ্গে বঙ্গবন্ধু পরিবারের সখ্যতা দীর্ঘদিনের।

আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য ও গৃহায়ন গণপূর্তমন্ত্রী ইঞ্জিনিয়ার মোশাররফ হোসেন বলেন, গঠনতন্ত্র অনুযায়ী সভাপতির পদটি শুণ্য হওয়ায় সিনিয়র সহ-সভাপতি হিসেবে ভারপ্রাপ্ত সভাপতি হওয়ার কথা। সে হিসেবে মাহতাব উদ্দিন চৌধুরীকে আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্যরা ভারপ্রাপ্ত সভাপতি হিসেবে দায়িত্ব দেন।

জহুর আহমদ চৌধুরীর তৃতীয় ছেলে হেলাল উদ্দিন চৌধুরী তুফান বলেন, নগর কমিটি এমনিতেই মেয়াদোত্তীর্ণ। যতদিন নতুন কমিটি বা সম্মেলন না হবে, ততদিন মাহতাব ভাইকেই সভাপতি হিসেবে দায়িত্ব পালন করতে বলেছেন। নগর আওয়ামী লীগের যেহেতু দুটি পক্ষের মধ্যে বিরোধ আছে। তাই হয়তো মাননীয় প্রধানমন্ত্রী মাহতাব উদ্দিন চৌধুরীকে সতর্কতার সাথে দায়িত্ব পালন করতে বলেছেন। নেত্রী আরও বলেছেন, মাহতাব ভাইকে বলবে সবাইকে নিয়ে মিলেমিশে যাতে কাজ করে।

২০১৩ সালের ১৪ নভেম্বর চট্টগ্রাম মহানগরের জন্য তিন বছর মেয়াদী বর্তমান কমিটি ঘোষণা করে আওয়ামী লীগ। আগের কমিটির সভাপতি মহিউদ্দিন চৌধুরীকে নেতৃত্বে রেখে সাধারণ সম্পাদক করা হয় আ জ ম নাছির উদ্দিনকে। ৭১ সদস্যের এই কমিটির বিভিন্ন পদে মহিউদ্দিনের অনুসারী হিসেবে পরিচিতদেরই প্রাধান্য দেখা যায়।

নগরীর রাজনীতিতে সেসময় ‘মহিউদ্দিনবিরোধী’ হিসেবে পরিচিত ডা. আফসারুল আমীন এবং নুরুল ইসলাম বিএসসি পান সহ-সভাপতির পদ। গত ১৫ ডিসেম্বর মহিউদ্দিনের মৃত্যুর পর সন্ধ্যায় দাফন শেষে তার চশমা হিলের বাসায় অনানুষ্ঠানিক বৈঠকে বসেছিলেন নগর কমিটির জ্যেষ্ঠ নেতারা। সেখানে সিদ্ধান্ত হয় উপস্থিতি থাকা সাপেক্ষে জ্যেষ্ঠতার ভিত্তিতে সহ-সভাপতিদের মধ্যে কেউ একজন সভাপতিত্ব করবেন। ওই সভার সিদ্ধান্ত অনুসারেই ১৬ ডিসেম্বর শহীদ মিনারে মহানগর আওয়ামী লীগ আয়োজিত বিজয় দিবসের আলোচনা সভায় সভাপতিত্ব করেন এক নম্বর সহ-সভাপতি মাহতাব উদ্দিন চৌধুরী।

Comments

comments

Close