আজ: ২৭ মে, ২০১৮ ইং, রবিবার, ১৩ জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ, ১২ রমযান, ১৪৩৯ হিজরী, রাত ৩:৩৮
সর্বশেষ সংবাদ
চটগ্রাম বিভাগ, বিনোদন কক্সবাজার সমুদ্র সৈকতে ‘ইত্যাদি’

কক্সবাজার সমুদ্র সৈকতে ‘ইত্যাদি’


পোস্ট করেছেন: niher sarkar | প্রকাশিত হয়েছে: ১২/২৫/২০১৭ , ৭:৫৭ পূর্বাহ্ণ | বিভাগ: চটগ্রাম বিভাগ,বিনোদন


অনুষ্ঠান পরিচালনা করছে হানিফ সংকেত 

বিনোদন ডেস্কঃ
অনুষ্ঠানের নাম ‘ইত্যাদি’। বাংলাদেশের টেলিভিশন ইতিহাসে সবচেয়ে সফল ও দর্শকপ্রিয় অনুষ্ঠান। দর্শকনন্দিত উপস্থাপক হানিফ সংকেতের পরিকল্পনা ও সঞ্চালনার এই অনুষ্ঠান দীর্ঘ দিন ধরে দর্শকের মনের খোরাক জুগিয়ে আসছে। প্রথম পর্যায়ে বিভিন্ন মিলনায়তনে অনুষ্ঠিত হলেও ধীরে ধীরে ‘ইত্যাদি’ বের হয়ে আসে বাংলাদেশের বিভিন্ন ঐতিহ্যবাহী স্থানগুলোতে। দেশের অধিকাংশ ঐতিহাসিক স্থানে ‘ইত্যাদি’ ধারণ করা হয়েছে। তুলে ধরা হয়েছে সেসব অঞ্চলের সংস্কৃতি ও মানুষের জীবন-যাপন ধারা।

এরই ধারাবাহিকতায় এবার ‘ইত্যাদি’ ধারণ করা হয়েছে বিশ্বের সবচেয়ে দীর্ঘ সমুদ্রসৈকত কক্সবাজারে। সমুদ্রের সৈকতে বালুর মধ্যেই নির্মাণ করা হয়েছে ‘ইত্যাদি’র স্টেজ। পেছনে উত্তাল সমুদ্র আর সামনে হাজারও দর্শক। সুতরাং এবারের ‘ইত্যাদি’ যে অনেক বেশি স্পেশাল হতে চলেছে, সেটা বাড়িয়ে বলার কিছু নেই।

এবারের ‘ইত্যাদি’র বিভিন্ন পর্ব তৈরি করা হয়েছে সাগরকে ঘিরে। থাকছে কক্সবাজারের প্রাকৃতিক সৌন্দর্যমণ্ডিত, দর্শনীয় ও পর্যটকদের জন্য আকর্ষণীয় স্থানগুলোর ওপর তথ্যভিত্তিক প্রতিবেদন। সম্প্রতি তিনবার গিনেস বুক অব ওয়ার্ল্ড রেকর্ডস অর্জনকারী মাগুরার হালিমের ওপর রয়েছে একটি অনুকরণীয় প্রতিবেদন। ১৯৯৫ সালে যাকে প্রথম দর্শকদের সামনে উপস্থাপন করেছিল ইত্যাদি। ঠাকুরগাঁও জেলার এক নিভৃত পল্লীতে গড়ে তোলা একটি ব্যতিক্রমধর্মী যাদুঘর ‘লোকায়ন জীবন বৈচিত্র্য যাদুঘরের’ ওপর রয়েছে একটি অনুসন্ধানী প্রতিবেদন। এবারের বিদেশি প্রতিবেদনে রয়েছে পবিত্র মদিনা শরীফের একটি ব্যতিক্রমী রাস্তা।

এবারের ইত্যাদিতে মূল গান রয়েছে দু’টি। এরমধ্যে একটি গান গেয়েছেন কক্সবাজারের সৈকত শিল্পী জাহিদ এবং তার সঙ্গে গেয়েছেন চট্টগ্রামেরই সন্তান রবি চৌধুরী। এছাড়া সাগর নিয়ে একটি পুরানো জনপ্রিয় গান ধারণ করা হয় সমুদ্র সৈকতে। গানটিতে অভিনয় করেছেন অভিনয়ের দুই তারকা শিল্পী তারিন ও মীর সাব্বির। এছাড়াও রয়েছে চট্টগ্রামের শিল্পী মিঠুন চক্র ও ইমতিয়াজ আলী জিমির পরিবেশনায় যন্ত্র সংগীতের লীলামুখর খেলা-সাগর সংলাপ। সাগর পাড়ে ধারণ হবে বলে সাগরের ঢেউয়ের সঙ্গে একটি ব্যতিক্রমী যন্ত্রসংগীতের পরিকল্পনা করা হয় এবারের ইত্যাদিতে। ঢেউ আর যন্ত্রের তালে ব্যতিক্রমী এই যন্ত্রসংগীতটি দর্শকদের ভিন্ন স্বাদ দেবে বলে মনে করেন এর হানিফ সংকেত।

দর্শক পর্বের সঙ্গে বরাবরের মতো রয়েছে বিভিন্ন সমসাময়িক ঘটনা নিয়ে বেশ কিছু সরস অথচ তীক্ষ্ণ নাট্যাংশ। রীতি মেনে ভীতি, কর্মফলের মর্মকথা, রাশিফলে বাসি কথা, সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমের প্রভাব, চোর কথন, শপথ ভঙ্গের শপথসহ বিভিন্ন বিষয়ের ওপর রয়েছে বেশ কয়েকটি নাট্যাংশ।

হানিফ সংকেতের রচনা, পরিচালনা ও উপস্থাপনায় ‘ইত্যাদি’ প্রচার হবে আগামী ২৯ ডিসেম্বর রাত ৮টার বাংলা সংবাদের পর বিটিভি ও বিটিভি ওয়ার্ল্ডে। ফাগুণ অডিও ভিশনের ব্যানারে ইত্যাদি স্পন্সর করেছে কেয়া কসমেটিক্স লিমিটেড।

Share on Facebook0Tweet about this on TwitterShare on Google+0Pin on Pinterest0Share on LinkedIn0Share on Tumblr0Email this to someonePrint this page

Comments

comments

Close