সর্বশেষ সংবাদ
অপরাধ, জেলা সংবাদ ভুরুঙ্গামারীতে বিএনপি নেতার হামলার ভয়ে বাড়ি ছাড়া দুই পরিবার

ভুরুঙ্গামারীতে বিএনপি নেতার হামলার ভয়ে বাড়ি ছাড়া দুই পরিবার


পোস্ট করেছেন: ভোরের খবর ডেস্ক | প্রকাশিত হয়েছে: 07/27/2020 , 11:53 am | বিভাগ: অপরাধ,জেলা সংবাদ


এজি লাভলু, স্টাফ রিপোর্টার

ভুরুঙ্গামারীর জয়মনিরহাট ইউনিয়নের বিএনপি নেতা ও ভূমিদস্যু আতাউল গনি ওসমানি সঙ্ঘবদ্ধের হামলার ভয়ে বাড়ি ছাড়া বিমাতা ভাইয়ের দুই পরিবার। ভুক্তভোগী ঐ পরিবার থানায় অভিযোগ করে মানবেতর জীবনযাপন করে আসছেন।

সরেজমিনে ও অভিযোগ সূত্রে জানা গেছে, কুড়িগ্রামের ভুরুঙ্গামারী উপজেলার জয়মনিরহাট ইউনিয়নের বকুলতলী গ্রামের হাজ্বী আবুল হোসেনের পুত্র মাইদুল ইসলাম ও আব্দুল রফিকের পিতার দেয়া সাব-কবলা জমি ও নিজনামীয় সম্পত্তি বসতবাড়ি সংলগ্ন প্রায় তিন একর দীর্ঘদিন থেকে ভোগদখল করে আসছেন।

সম্প্রতি হাজ্বী আবুল হোসেন তার ৭সন্তানকে গত ১৫ মার্চ ২০০৪ খ্রিঃ ভূরুঙ্গামারী সাব-রেজিস্টার অফিসে জমি বন্টন পূর্বক সাব কবলা করে দেন।
অথচ হাজ্বী আবুল হোসেনের বড় পুত্র আতাউর গনি ওসমানি উক্ত বিমাতা ভাইয়ের সম্পত্তির লোভে বশীভূত হয়ে ও সম্পত্তি জোর পূর্বক দখল করাসহ নিজের স্বার্থ হাসিলে মাইদুল ইসলাম ও আব্দুল রফিকের বিরুদ্ধে একের পর এক নির্যাতন মিথ্যা মামলাসহ বিভিন্ন অনৈতিক কার্যক্রম চালিয়ে যাচ্ছেন।

বিএনপি নেতা আতাউল গনি ওসমানি একাধিক বিবাহ, মামলার দালাল, বিভিন্ন অনৈতিক কার্য্যকলাপে জড়িত ও বর্তমানে তিন স্ত্রী রয়েছে। বিগত এক বছর পূর্বে আতাউল গনি ওসমানি তার বিমাতা ভাই মাইদুল ইসলাম ও আব্দুল রফিকের সম্পত্তি অবৈধভাবে দখল করতে আতাউল গনি ওসমানি ও তার পুত্র বেলাল হোসেন বাদল, আব্দুল বারেক, নাছির উদ্দিন, রিপন মিয়া ও তিন স্ত্রীসহ দেশীয় অস্ত্রসস্ত্রে অতর্কিত হামলা চালিয়ে বসতবাড়ী ভাংচুর লুটপাট করেন। বসতবাড়ীতে থাকা বনজ ও ফলজ গাছ কর্তন সাবার করেছে। এতে ঐ দুটি পরিবারের প্রায় বিশ লক্ষ টাকা ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। সম্প্রতি বিষয়টি নিয়ে স্থানীয়ভাবে আপোস করতে একাধিক বৈঠক হলেও ভূমিদস্যু পক্ষ বিচার অমান্য করে আসছে।

বিগত এক বছর পূর্ব থেকে মাইদুল ইসলাম ও আব্দুল রফিকের পরিবার বাড়ি ছাড়া হয়ে পরিবার নিয়ে অন্যের বাড়িতে বসবাস করে আসছেন। এ বিষয়ে মাইদুল ইসলাম বাদী হয়ে ভূরুঙ্গামারী থানায় অভিযোগ দায়ের করেন। গতকাল শুক্রবার অভিযোগ তদন্তে ভুরুঙ্গামারী থানার এসআই আবু তাহের সরেজমিনে গেলে আতাউল গনি ওসমানি ও তার পুত্র ঐ পুলিশ কর্মকর্তার সাথে অশ্লীল আচরণ করেন।

স্থানীয় আব্দুস সালাম, ফজু মিয়া, আনোয়ার হোসেন, মালা বেগমসহ একাধিক ব্যক্তি বলেন, বিএনপি নেতা ও ভূমিদস্যু আতাউল গনি ওসমানি ও তার পুত্র এমনভাবে হামলা করাছে যা বর্ণনাতীত। প্রাণভয়ে মাইদুল ইসলাম ও আব্দুল রফিকের পরিবার পালিয়ে বেড়াচ্ছেন।

অভিযোগের বাদী মাইদুল ইসলাম বলেন, এক বছর থেকে আমার বিমাতা বড় ভাই আতাউল গনি ওসমানি ও তার পুত্র বেলাল হোসেন বাদল, আব্দুল বারেক, নাছির উদ্দিন, রিপন মিয়া একাধিকবার আমাদের বসতবাড়ি ভাংচুর, লুটপাট, নির্যাতন করেছে। প্রাণের ভয়ে বসতবাড়ি ছেরে পরিবার নিয়ে মানবেতর জীবন যাপন করছি।

জয়মনিরহাট ইউনিয়নবাসী কুড়িগ্রাম পুলিশ সুপার মোহাম্মদ মহিবুল ইসলাম খান এর নিকট আবেদন অবিলম্বে দোষীদের গ্রেফতার করে বিচারের আওতায় আনা হোক।

ভুরুঙ্গামারী থানার অফিসার ইনচার্জ ইমতিয়াজ কবির বলেন, তদন্ত সাপেক্ষে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

Comments

comments

Close